চিরসখা, ছেড়ো না মোরে ছেড়ো না


চিরসখা, ছেড়ো না মোরে ছেড়ো না।
সংসারগহনে নির্ভয়নির্ভর, নির্জনসজনে সঙ্গে রহো।
অধনের হও ধন, অনাথের নাথ হও হে, অবলের বল।
জরাভারাতুরে নবীন করো ওহে সুধাসাগর।।


হে ঠাকুর, প্রানের ঠাকুর, তোমার আলোয় আমরা পথ দেখি। তোমাতে আমরা পাই জীবনের চলার পথের দিশা। আমাদের সমস্ত অভিব্যাক্তি তোমার কথা ধার করেই জানাই। প্রার্থনা করি যেন তোমাতে অবিচল থাকতে পারি সর্বক্ষন।
(তোমার এই ১৫০তম জন্মদিনে তোমাকে নিয়ে একটা প্রবন্ধ লিখতে আর রুচি হচ্ছে না। তোমারই একটা প্রবন্ধের অংশ এখানে তুলে দিলাম।)


অনেকেই বলেন বাঙালিরা ভাবের লোক, কাজের লোক নহে। এইজন্য তাঁহারা বাঙালিদিগকে পরামর্শ দেন ‘Practical হও’ । ইংরাজি শব্দটাই ব্যবহার করিলাম। কারণ, ঐ শব্দটাই চলিত। শব্দটা শুনিলেই সকলে বলিবেন, হ্যাঁ হ্যাঁ, বটে, এই কথাটাই বলা হইয়া থাকে বটে। আমি তাহার বাংলা অনুবাদ করিতে গিয়া অনর্থক দায়িক হইতে যাইব কেন। যাহা হউক, তাঁহাদের যদি জিজ্ঞাসা করি, practical হওয়া কাহাকে বলে, তাঁহারা উত্তর দেন– ভাবিয়া চিন্তিয়া ফলাফল বিবেচনা করিয়া কাজ করা, সাবধান হইয়া চলা, মোটা মোটা উন্নত ভাবের প্রতি বেশি আস্থা না রাখা, অর্থাৎ ভাবগুলিকে ছাঁটিয়া ছুঁটিয়া কার্যক্ষেত্রের উপযোগী করিয়া লওয়া। খাঁটি সোনায় যেমন ভালো মজবুত গহনা গড়ানো যায় না, তাহাতে মিশাল দিতে হয়, তেমনি খাঁটি ভাব লইয়া সংসারের কাজ চলে না, তাহাতে খাদ মিশাইতে হয়। যাহারা বলে সত্য কথা বলিতেই হইবে তাহারা sentimental লোক, কেতাব পড়িয়া তাহারা বিগড়াইয়া গিয়াছে, আর যাহারা আবশ্যকমত দুই-একটা মিথ্যা কথা বলে ও সেই সামান্য উপায়ে সহজে কার্যসাধন করিয়া লয় তাহারা practical লোক। এই যদি কথাটা হয়, তবে বাঙালিদিগকে ইহার জন্য অধিক সাধনা করিতে হইবে না। সাবধানী ভীরু লোকের স্বভাবই এইরূপ। এই স্বভাববশতই বাঙালিরা চাকরি করিতে পারে কিন্তু কাজ চালাইতে পারে না। উল্লিখিত শ্রেনীর practical লোক ও প্রেমিক লোক এক নয়। Practical লোক দেখে ফল কী– প্রেমিক তাহা দেখে না, এই নিমিত্ত সেইই ফল পায়। ঞ্জানকে যে ভালবাসিয়া চর্চা করিয়াছে সেই ঞ্জানের ফল পাইয়াছে; হিসাব করিয়া যে চর্চা করে তাহার ভরসা এত কম যে, যে শাখাগ্রে ঞ্জানের ফল সেখানে সে উঠিতে পারে না, সে অতি সাবধানসহকারে হাতটিমাত্র বাড়াইয়া ফল পাইতে চায়– কিন্তু ইহারা প্রায়ই বেঁটে লোক হয়, সুতরাং “প্রাংশুলভো ফলে লোভাদুদ্বাহুরির বামনঃ” হইয়া পড়ে।

Advertisements

10 Responses to চিরসখা, ছেড়ো না মোরে ছেড়ো না

  1. সৌম বলেছেন:

    আমার আব্বুও আমাকে বলে practical হও।

  2. তারা বলেছেন:

    আমিও বলি তাপস practical হও-practical।

  3. mahmud faisal বলেছেন:

    হাহাহাহা

    ঠাকুরদা সবসময়েই জোস… 🙂

    • তাপস বলেছেন:

      স্বপ্নবিলাসীদের এ কথা প্রায়শঃই শুনতে হয় আপনজনদের থেকে। কবিগুরু তাদের জন্য একটু সান্ত্বনা দিয়েছেন। কি বল?

  4. তাপস বলেছেন:

    আরে আনন্দ পাবে কেন? বাঙালিরাই এ কথা সব থেকে বেশী বলে।

  5. Rafi বলেছেন:

    বাঃ ভাল প্রবন্ধটা দিয়েছ। বাংগালীরা আনন্দ পাবে।

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: